ফেইসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে ঢাবি ছাত্রের আত্মহত্যা!

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের দ্বিতীয় বর্ষের এক ছাত্র আত্মহত্যা করেছেন।

সোমবার সকালে বরিশালের উজিরপুর উপজেলার গ্রামের বাড়িতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষা ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের ছাত্র ইমাম হোসেনের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেন পরিবারের সদস্যরা।
রাজধানীর নটর ডেম কলেজ থেকে এইচএসসি পাস করে ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হয়েছিলেন ইমাম হোসেন।

ইমামের এলাকার বন্ধু ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজকল্যাণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের ছাত্র মো. মনির হোসেন বরিশাল থেকে আজ দুপুরে মুঠোফোনে প্রথম আলোকে বলেন, একটি মেয়ের সঙ্গে সম্পর্ক ছিল ইমামের। কিছুদিন আগে সম্পর্কটি ভেঙে যায়।

এ নিয়ে ইমাম অনেক দিন ধরেই হতাশায় ভুগছিলেন।মনির জানান, রবিবার রাতে নিজের বাড়িতেই এলাকার তিনজন বন্ধুর সঙ্গে অনেক রাত পর্যন্ত আড্ডা দেন ইমাম। সকাল সাড়ে আটটার দিকে ওই তিন বন্ধু বাসা থেকে চলে আসেন। বন্ধের মধ্যে এলাকায় থাকায় কিছুদিন ধরে স্থানীয় কয়েকজন স্কুলছাত্রকে পড়াচ্ছিলেন ইমাম। আজ সকাল নয়টার সময় ওই ছাত্ররা ইমামের বাসায় পড়তে যায়। ইমাম তাদের দুই দিনের ছুটি দিয়েছিলেন। কিছু সময় পর দরজা ভেঙে ঘরে ঢুকে তাঁর পরিবারের সদস্যরা ইমনকে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখেন।

কলেজজীবন থেকে ইমামের ঘনিষ্ঠ বন্ধু ছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের ছাত্র হোসাইন আজম। তিনি জানান, বান্ধবীর মা–বাবা তাঁদের সম্পর্কটি মেনে নিতে পারছিলেন না বলে ইমন তাঁকে জানিয়েছিলেন।

কিছুদিন ধরেই সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে আত্মহত্যাবিষয়ক বিভিন্ন পোস্ট দিচ্ছিলেন ইমাম হোসেন। বন্ধুরা তাঁকে অনেকবার বোঝানোর চেষ্টাও করেছেন। গতকাল রোববার ইমাম ফেসবুকে ‘আল-বিদা’ লিখে একটি স্ট্যাটাস দেন।

error: Content is protected !!