সখীপুরে বৃষ্টি উপেক্ষা করে পশুর হাটে মানুষের ঢল। মানা হচ্ছেনা স্বাস্থ্যবিধি

সরকারি নির্দেশ রয়েছে করােনাভাইরাস রােধে সব ধরনের গণজমায়েত থেকে দূরে থাকার।

মাস্ক পরা,সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা বাধ্যতামূলক। কিন্তু এ নির্দেশনা অমান্য করে টাঙ্গাইলের সখীপুর উপজেলার বিভিন্ন পশুহাটে মানুষের মেলা বসেছে।

ক্রেতা-বিক্রেতার চেয়ে পশু দেখতে আসা লােকের ভিড়ই বেশি। এতে উদ্বিগ্ন সচেতন মহল। রয়েছে করােনা ঝুঁকি। সপ্তাহে প্রতি বৃহস্পতিবার উপজেলার কাকড়াজান ইউনিয়নের গড়বাড়ি পশুর হাট বসে। এ হাট উপজেলার মধ্যে

অন্যতম বড় পশুর হাট। হাটে পশুর পাশাপাশি ক্রেতা-বিক্রেতার ভিড়সহ কাদা-বৃষ্টির মধ্যে চলছে বেচাকেনা। হাঁচি-কাশি, থুতু ফেলা, হাত মেলানােসহ বন্ধ নেই সংস্পর্শ আসার কোনাে কিছুই।

উপজেলার হামিদপুর এলাকা থেকে আসা মুসা ও মােস্তফা নামেদুই গরু বিক্রেতা বলেন, বাজারে কেউই স্বাস্থ্যবিধি মানছেন না।

ঝুঁকি জেনেও জীবিকার তাগিদেই তারা বাজারে এসেছেন।

স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান তারিকুল ইসলাম বিদ্যুৎ বলেন, স্বাস্থ্যবিধি মেনে যাতে গরু কেনা-বেচা করা হয় সেজন্য মাইকিং করা হচ্ছে। অন্যদিকে ইজারাদারদের সতর্ক করা হয়েছে।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার শাহিনুর আলম বলেন, পশুর হাটে সামাজিক দূরত্ব না মানলে করােনাভাইরাস সংক্রমণের হার বাড়তে পারে। তাই সবাইকেই সচেতন থাকা দরকার।

error: Content is protected !!