ঈদে গণপরিবহন নয়, বন্ধ থাকবে পণ্য পরিবহন

ঈদে গণপরিবহন চলা না-চলা বিষয়ে সরকারি প্রজ্ঞাপনে ছাপার ভুল নিয়ে তৈরি হয়েছে বিভ্রান্তি। আসলে গণপরিবহন নয়, বন্ধ থাকবে পণ্য পরিবহন।

মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী করোনাভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিরোধে ঈদের আগে ও পরে ৯ দিন গণপরিবহন বন্ধ থাকবে- এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন কার্যকর করতে বুধবার নির্দেশনা আসে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ, বিআরটিএ’র চেয়ারম্যানের কাছে। সড়ক পরিবহণ ও সেতু মন্ত্রণালয়ের সহকারী সচিব মো. জসিম উদ্দিন স্বাক্ষরিত ওই প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, কভিড-১৯ সংক্রমণ প্রতিরোধের লক্ষ্যে ঈদে জনসাধারণের যাতায়াত সীমিত রাখার জন্য গণপরিবহণ বন্ধের সিদ্ধান্ত নিয়েছে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ। ঈদের আগে পাঁচ দিন, ঈদের দিন ও ঈদের পরে তিন দিন মিলিয়ে মোট ৯ দিন বন্ধ থাকবে গণপরিবহন।

কিন্তু নৌ-পরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী জানিয়েছেন, গণপরিবহন বন্ধের যে সিদ্ধান্ত জানানো হয়েছে তা ছিল ভুল বোঝাবুঝি। প্রজ্ঞাপনে ছাপার ভুলে এই বিভ্রান্তি তৈরি হয়। আসলে বন্ধ থাকবে পণ্যবাহী যেকোনো পরিবহন, গণপরিবহন নয়।

তিনি আরো জানান, আজকে যখন আমরা বৈঠক শুরু করেছিলাম তখন আমরাও বলেছিলাম, ঈদে গণপরিবহন বন্ধ থাকবে। পরবর্তীতে মন্ত্রী পরিষদ সচিবের সঙ্গে আমাদের কথা হয়েছে, এখানে একটা ভুল বোঝাবুঝি হয়েছে। সিদ্ধান্ত হয়েছে ঈদের আগে ৫ দিন ও পরে ৩ দিন পণ্যবাহী যান চলাচল বন্ধ থাকবে।

নৌ প্রতিমন্ত্রী জানান, প্রজ্ঞাপনে ছাপার ভুলে এই বিভ্রান্তি তৈরি হয়। ঈদের আগে ৫ দিন, ঈদের দিন ও পরে ৩ দিন পণ্যবাহী যানবাহন বন্ধ থাকবে। চালু থাকবে যাত্রীবাহী বাস, লঞ্চ, ট্রেনসহ সব ধরনের গণপরিবহন।

error: Content is protected !!