করোনা থেকে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরলো টাঙ্গাইলের দুই যুবক

করোনা ভাইরাস সংক্রমণে আক্রান্ত টাঙ্গাইলে দুই যুবক সুস্থ্য হয়ে বাড়ি ফিরেছেন। সুস্থ হওয়ায় বুধবার দুপুরে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতাল থেকে তাদের ছাঁড়পত্র দেওয়া হয়।

সুস্থ যুবকরা হলেন, ভূঞাপুর উপজেলার গোবিন্দাসী ইউনিয়নের জিগাতলা গ্রামের মো. আব্দুল বাছেদের ছেলে আবু সাইদ (২৫) ও নাগরপুর উপজেলার পানান গ্রামের মো. ছবেদ আলী ছেলে মোহাম্মদ আলী (২৮)।

জানা যায়, গত ১৫ এপ্রিল থেকে তারা টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালের করোনাভাইরাস আইসোলেশন ইউনিটে ভর্তি ছিলেন ভূঞাপুরের আবু সাইদ (২৫) আর নাগরপুরের মোহাম্মদ আলী (২৮)। টানা ১৪ দিনের চিকিৎসা শেষে সুস্থ হন তারা। বর্তমানে এ ওয়ার্ডে ভর্তি রোগী সংখ্যা ৩ জন।

এ হাসপাতালের করোনা আইসোলেশন ইউনিটের জন্য নিয়োজিত রয়েছেন ২৭ জন ডাক্তার আর ২৯ জন নার্স। এরমধ্যে প্রতিদিন দায়িত্ব পালন করছেন ৪ জন ডাক্তার আর ৬ জন নার্স।

এ নিয়ে করোনামুক্ত মোহাম্মদ আলী ও আবু সাইদ জানান, তারা দুজনেই ঢাকায় চাকুরী করতেন। গত ১৪ এপ্রিল তাদের নমুনা সংগ্রহ করার করোনা পজিটিভ বলে জানানো হয়। পরে ১৫ এপ্রিল থেকে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি হয়। সেখানে ১৪ দিনের চিকিৎসা শেষে বুধবার সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরছেন।

তারা জানান, করোনা আক্রান্ত ব্যক্তিদের ভয় পাওয়ার মত কোন কারণ নেই। আদা দিয়ে বেশি বেশি গরম পানি পান আর চিকিৎসকের পরামর্শ মেনে চললেই অতি দ্রুত এই ভাইরাস থেকে সুস্থ হওয়া যায়।

এ প্রসঙ্গে টাঙ্গাইল জেলারেল হাসপাতালে আবাসিক চিকিৎসক মো. শফিকুল ইসলাম সজীব জানান, আল্লাহর রহমত আর তাদের প্রচেষ্টায় করোনাভাইরাস আক্রান্ত দুই যুবক টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালের করোনা ইউনিট থেকে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন। এতে চিকিৎসা সেবায় নিয়োজিত ডাক্তার ও নার্সসহ সকলের উৎসাহ বেড়েছে।

এর ফলশ্রুতিতে ভবিষ্যতেও জীবনের ঝুঁকি নিয়ে এ ইউনিটে কর্মরতরা করোনা ভাইরাসে আক্রান্তদের সেবা প্রদান করবেন বলে আশা প্রকাশ করেন তিনি।

error: Content is protected !!